ইক্সক্লোসিভ ভিডিও

ঘরেই বানিয়ে নিন লাইটিং লেন্টার্ন

ত্বকের উজ্বলতার জন্য ২০টি টিপস

ডেনমার্কে তৈরি হচ্ছে বিশ্বের প্রথম লম্বা ডিম! দেখুন কীভাবে লম্বা ডিম পাড়ে মুরগী

বিজ্ঞাপণ ব্যানার

বিজ্ঞাপণ ব্যানার

টপ ফাইভ

00310
0057
0057
0057
0057
বিপ্লব কুমার দেবকে প্রধান করে ত্রিপুরার নির্বাচনী প্রচার কমিটি ঘোষিত

আগরতলা, ১১ই জানুয়ারি (এ.এন.ই ): বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব ত্রিপুরার বিধানসভার নির্বাচনের জন্য রাজ্য প্রচার কমিটি ঘোষণা দিয়েছে। প্রচার কমিটির প্রধান হিসাবে থাকছেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি বিপ্লব কুমার দেব। বিজেপির নির্বাচনী প্রচার কমিটি কনভেনার বিপ্লব কুমার দেব ছারাও ১৫ জনের কমিটিতে রয়েছেন, কো-কনভেনার হিসাবে থাকছেন দুই বিধায়ক সুদীপ রায় বর্মণ এবং রতন লাল নাথ। তাছাড়া এই কমিটির সদস্য হিসাবে থাকবেন ত্রিপুরার রাজপরিবারের সদস্য তথা প্রবীণ জনজাতি নেতা জিষ্ণু দেববর্মা, পার্টির সহ-সভাপতি সুবল ভৌমিক, রামপদ জামাতিয়া, বিধায়ক প্রনোজিত সিংহ রায়, রাজ্য কমিটির সাধারণ সম্পাদিকা প্রতিমা ভৌমিক, প্রবক্তা ডাঃ অশোক সিনহা, জনজাতি নেতা বিমল চাকমা, তপশিলি নেতা তথা বিধানসভার প্রাক্তন অধ্যক্ষ জিতেন সরকার, সিপিআইএম ছেড়ে বিজেপিতে আসা রেবতী মোহন দাস, যুব মোর্চার সভাপতি টিঙ্কু রায়, মহিলা মোর্চার সভানেত্রী পাপিয়া দত্ত এবং সংখ্যালঘু মোর্চার সভাপতি জসীম উদ্দিন। বিপ্লব কুমার দেব বলেন, "আমি উদয়পুরের বাসিন্দা ছোট বেলা থেকে অনেকবার ত্রিপুরেশ্বরী মন্দিরের বার্ষিক মেলায় ভলান্টিয়ার হিসাবে ছিলাম। আর তাই ভালভাবে জানি জুতো নিয়ে কতদূর যাওয়া যায়। অমিত ভাই শাহ জুতো নিয়ে ভিআইপি দের জন্য নিদিষ্ট করা প্রতিক্ষালয় অব্ধি গেছেন। সেখান থেকেই পোশাক পরিবর্তন এবং জুতো রাখার সমস্ত ব্যবস্থা ছিল। আর যে ছবিটি প্রচারে আনা হয়েছে তাতে স্পষ্ট দেখা যাচ্ছে। এটি মল পথ থেকে মন্দিরে প্রাঙ্গণে যাবার পথ মাত্র। তিনি বলেন, সিপিআইএম ধর্মকে আফিং আর বিপর্যয় বুঝে এখন মানুষের ভাবাবেগকে প্রভাবিত করার জন্য অনৈতিক পন্থা অবলম্বন করছে। তবে রাজ্যের মানুষ ছবিটি দেখে বুঝে গেছেন। আর সিপিআইএম এর দুরাচারী হবার আগে একবার প্রমাণও পেয়েছেন। এতে আখারে সিপিআইএমেরই লোকসান হচ্ছে। তিনি উল্লেখ করেন অমিত ভাইয়ের উদয়পুরে ত্রিপুরেশ্বরী মন্দিরে প্রতি যথেষ্ট শ্রদ্ধাভক্তি রয়েছে। কারণ এই মন্দিরের সাথে উনার পারিবারিক যোগাযোগ রয়েছে। এই মন্দিরের তৎকালীন পুরোহিত বল্লভ চক্রবর্তী অমিত ভাইয়ের জন্মের নামকরণ করেছিলেন। গুজরাটিদের নাম অমিত হয় না। বাঙ্গালী পুরোহিতের রাখা নামের কারণেই বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতির অমিত শাহ হয়েছে।


Copyright © 2012 আগরতলা নিউজ এক্সপ্রেস. All Rights Reserved.